চট্টগ্রামসোমবার , ১৫ এপ্রিল ২০২৪
  1. অগ্নিকাণ্ড
  2. অপরাধ
  3. অপহরণ
  4. অর্থনীতি
  5. আইন বিচার
  6. আতঙ্ক
  7. আত্মহত্যা
  8. আন্তর্জাতিক
  9. আবহাওয়া বার্তা
  10. ঈদুল আযহা উদযাপন
  11. ঈদুল ফিতর উদযাপন
  12. উন্নয়ন
  13. কক্সবাজার
  14. কৃষি
  15. ক্যাম্পাস
আজকের সর্বশেষ সবখবর

নওগাঁর মান্দায় মদ্যপানে তিনজনের মৃত্যু মামলায় মদ সরবরাহকারী আটক

deshbarta news
এপ্রিল ১৫, ২০২৪ ২:৫৫ অপরাহ্ণ
Link Copied!

নওগাঁর মান্দায় মদ্যপানে তিনজনের মৃত্যু
মামলায় মদ সরবরাহকারী আটক

মোঃ রমজান হোসেন নওগাঁ জেলা প্রতিনিধিঃ
নওগাঁর মান্দা থানা পুলিশ ঈদের দিন সন্ধ্যায় বিষাক্ত মদ্যপান করে তিন কলেজ ছাত্রের মৃত্যুর ঘটরায় দায়ের করা মামলার প্রধান আসামী মদ সরবরাহকারী বন্ধু মুক্তার হোসেনকে (২২) গ্রেপ্তার করেছে। তিনি উপজেলার ভারশোঁ ইউনিয়নের পাকুড়িয়া গ্রামের সিদ্দিকুর রহমানের ছেলে ও পেশায় নির্মাণ শ্রমিক। রোববার (১৪ এপ্রিল) থানা পুলিশ তাকে নওগাঁ কোর্টে হাজির করে পাঁচ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানান। আদালত রিমান্ড শুনানীর জন্য দিন ধার্য করে তাকে জেল হাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

মান্দা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোজাম্মেল হক কাজী জানান, মদ্যপানে তিন কলেজ ছাত্রের মৃত্যুর ঘটনায় নিহত আশিকুর রহমান আশিকের চাচা জসিম উদ্দিন বাদী হয়ে মুক্তার হোসেনসহ অজ্ঞাতনামা কয়েকজনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেন। ঘটনার পর থেকে মামলার প্রধান আসামী মুক্তার হোসেন পলাতক ছিলেন। তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা থানার এসআই শামীম হোসেন শনিবার দিবাগত রাতে নাটোরের গুরুদাসপুর থানা এলাকা থেকে তাঁকে গ্রেপ্তার করেন।

উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার ঈদের দিন বিকেলে মদের বিষ ক্রিয়ায় মারা যান কলেজ ছাত্র নাইমুর রহমান নিশাত, সারিকুল ইসলাম পিন্টু ও আশিকুর রহমান আশিক। অসুস্থ আরেক কলেজছাত্র নাদিম হোসেন রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। পাকুড়িয়া গ্রামের বিল উথরাইল মাঠে কলেজ ছাত্রদের ওই আড্ডায় মদ সরবরাহ করেছিলেন মুক্তার হোসেন। ওই কলেজ ছাত্রদের সঙ্গে একই স্কুলে পড়ছিলেন তিনি।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।