চট্টগ্রামবৃহস্পতিবার , ৯ মে ২০২৪
  1. অগ্নিকাণ্ড
  2. অজ্ঞাত
  3. অনশন
  4. অন্যরকম
  5. অপমৃত্য
  6. অপরাধ
  7. অপহরণ
  8. অবৈধ
  9. অভিনন্দন
  10. অর্থনীতি
  11. অসহায় দরিদ্র
  12. আইন বিচার
  13. আইন শৃঙ্খলা
  14. আতঙ্ক
  15. আত্মহত্যা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

হিন্দু ছেলের প্রেমের টানে খুলনার মুসলিম মেয়ে পালিয়ে আসলেন লালপুরে

deshbarta news
মে ৯, ২০২৪ ৩:৪১ অপরাহ্ণ
Link Copied!

হিন্দু ছেলের প্রেমের টানে খুলনার মুসলিম মেয়ে পালিয়ে আসলেন লালপুরে

স্বাধীন আলম হোসেন
লালপুর নাটোর প্রতিনিধি

হিন্দু ছেলের প্রেমের টানে খুলনার মুসলিম মেয়ে নাটোরের লালপুর এসে ইসলাম ধর্ম ত্যাগ করে হিন্দু ধর্ম গ্রহণ করে হিন্দু ছেলেকে বিয়ে করে রীতিমতোই ঘর সংসার করছেন রিন্টু কুমার বিশ্বাস ও সিনথিয়া আক্তার সাবা নামের একজোড়া কপোত-কপোতী।তাদের এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় হিন্দু-মুসলিম উভয় সমাজের মধ্যেই রয়েছে বিশাল ক্ষোভ।এদিকে এদের এক নজর দেখার জন্যও সকাল সন্ধ্যা ভিড় জমাচ্ছেন উৎসুক জনতা। এরই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার(৭ই মে-২৪)সরজমিনে লালপুর উপজেলার রায়পুর এলাকার মিঠুন বিশ্বাসের ছেলে রিন্টু কুমার বিশ্বাসের বাড়িতে গিয়ে তাদের সাথে কথা হলে তারা সংবাদ কর্মীদের হাতে তাদের বিয়ের কোর্ট ডকুমেন্টস সহ ভোটার আইডি কার্ড তুলে দিয়ে বলেন আমরা এই ডকুমেন্টস এর বাহিরে কোন কিছু বলতে চাই না,সবকিছু ডকুমেন্টসে দেওয়া আছে।তারা আরও বলেন স্থানীয় হিন্দু-মুসলিম সমাজের লোকজন কে কি বললো তাতে আমাদের কোন মাথা ব্যাথা নেই,আমরা আমাদের মতো চলতে চাই।
ডকুমেন্টস পর্যালোচনা করে দেখা যায় তারা উভয়ের গত ২৮ নভেম্বর-২৩ ইং তারিখে নাটোর আদালতে নোটারীর মাধ্যমে তাদের বিয়ের প্রস্তাব ঘোষিত হয় এবং একই দিনে ঐ মুসলিম মেয়ে আদালতের মাধ্যমেই মুসলিম ধর্ম ত্যাগ করে হিন্দু ধর্ম গ্রহণ করে।তার পূর্ব নাম সিনথিয়া আক্তার সাবা ছিল হিন্দু ধর্ম গ্রহণ করে তার নাম সিনথিয়া রানী বিশ্বাস করা হয়েছে।
সিনথিয়া আক্তার সাবা খুলনা সিটি কর্পোরেশনের ক্রিসেন্ট বাজার রোডের গোয়ালপাড়া এলাকার তারিকুজ্জামান ও মিসেস রুবিনা জামান দম্পত্তির মেয়ে বলে জানা গেছে।
এ বিষয়ে ঐ মুসলিম মেয়ের সাথে কথা হলে তিনি বলেন,প্রেম কখনো জাত-ধর্মের বাঁধা মানে না,আমি ভালোবাসার টানেই খুলনা থেকে রিন্টু কুমারের বাসায় পালিয়ে এসেছি এবং এখানে এসেই আদালতে মাধ্যমে মুসলিম ধর্ম ত্যাগ করে হিন্দু ধর্ম গ্রহণ করেছি।
এ বিষয়ে মেয়েটির মা-বাবার সঙ্গে কথা বলতে চাইলে মেয়ের দেওয়া তাঁর মা বার মোবাইল নম্বর বন্ধ পাওয়া গেছে বিধায় তাদের সাথে কথা বলা সম্ভব হয়নি।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।